কলকাতা

বাংলা সন্ত্রাসের স্বর্গরাজ্যে পরিণত হয়েছে: রাজ্যপাল

নিউজ বেঙ্গল ৩৬৫ ডেস্ক : ফের সরাসরি সংঘাত নবান্ন-রাজভবন। সরাসরি মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়কে  আক্রমণ করলেন রাজ্যপাল জগদীপ ধনকড়। বললেন, “সন্ত্রাসের স্বর্গরাজ্যে পরিণত হয়েছে বাংলা। আর তাই মুখ্যমন্ত্রীকে ওনার দায়িত্ব মনে করাতে চাই। রাজ্যপালের দায়িত্ব সংবিধানে স্পষ্টভাবে লেখা রয়েছে। আমি কারও রাবার স্ট্যাম্প নই।” সোমবার রাজ্য সরকারকে  নিশানা করে রাজভবন থেকে বক্তব্য রাখেন  রাজ্যের প্রশাসনিক প্রধান। একাধিক ইস্যুতে সরকারকে একহাত নেন তিনি। বলেন, “সন্ত্রাসের স্বর্গরাজ্যে পরিণত হয়েছে বাংলা। ক্ষমতার অলিন্দে বসে রয়েছে হার্মাদরা।”  এখানেই শেষ নয়। নজিরবিহীনভাবে সরাসরি মুখ্যমন্ত্রীকে উদ্দেশ্য করে রাজ্যপাল বলেন, “ক্ষমতার অলিন্দে হার্মাদদের অনুপ্রবেশ বন্ধ করুন।” এখানেই শেষ নয়, ক্ষোভের সুরে জানান, “মুখ্যমন্ত্রী কোন প্রশ্নেরই জবাব দেন না।” তাঁর কথায়, “বাণিজ্য সম্মেলন থেকে গণবন্টন, কোনও বিষয়েই মুখ্যমন্ত্রীকে প্রশ্ন করলে জবাব পাওয়া যায় না। কোথায় যাচ্ছি আমরা?” সোমবারই টুইট করে কেন্দ্রীয় সরকার পরিযায়ী শ্রমিকদের নিয়ে কেন্দ্র কোন তথ্য দিচ্ছে না বলে অভিযোগ করেন মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায়। আর এদিন সেই একই অভিযোগে খোদ মুখ্যমন্ত্রীকেই বিধলেন রাজ্যপাল। তাঁর কথায়, “উনি চান না যে মানুষ তথ্য পান, সেই জন্যই উপেক্ষা করেন।”  এরপরই রাজ্যের আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতি নিয়ে  এরপর  রাজ্য পুলিশকে একহাত নেন তিনি। বলেন, “শাসকদলের অনুগত পুলিশ। রাজ্য পুলিশের উপর নির্ভরশীল, তা স্পষ্ট। আর নিজের ভূমিকা পালনে ব্যর্থ পুলিশ। তা সর্বদা রাজনৈতিক প্রতিপক্ষদের দরজায় কড়া নাড়ছে। সবক্ষেত্রে নজরদারি চলছে। বাংলায় যা চলছে তা নৈরাজ্য ছাড়া আর কী? গণতন্ত্র আর পুলিশরাজ একসঙ্গে চলতে পারে না।”বাদ যাননি রাজ্য পুলিশের ডিজিও। তাকেও কড়া আক্রমণ করেন রাজ্যপাল বলেন, “রাজ্যের ডিজি কীভাবে এতটা দায়িত্বজ্ঞানহীন হতে পারেন, বিশ্বাসই করতে পারছি না।”

Show More

Related Articles

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Back to top button